হোম » শিক্ষা » নন্দীগ্রামে দোহার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ শিক্ষকের বেতন সাময়িক ভাবে বন্ধ

নন্দীগ্রামে দোহার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ শিক্ষকের বেতন সাময়িক ভাবে বন্ধ

নন্দীগ্রাম(বগুড়া)প্রতিনিধি:-বগুড়ার নন্দীগ্রাম উপজেলার ১নং বুড়ইল ইউনিয়নের দোহার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকসহ বিদ্যালয়টির ৫জন শিক্ষকের মাসিক বেতন সাময়িক ভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।

তবে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা বরাবর মুচলেকা প্রদান করা হলে বেতন দেওয়া হবে এমনটাই জানিয়েছে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা। প্রাপ্ত তথ্য জানা গেছে, গত ২৯শে নভেম্বর সকাল ১০ টায় উপজেলার ১নং বুড়ইল ইউনিয়নের দোহার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকগণ তৃতীয় প্রান্তিক মূল্যায়ণ পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশের বিষয় নিয়ে অত্র বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের অফিস কক্ষে বিদ্যালয়ের সকল শিক্ষকদের সমন্বয়ে ফলাফল প্রকাশের বিষয় নিয়ে আলোচনা চলছিল। ঠিক সেই মুহূর্তে বিদ্যালয়ে প্রবেশ করেন
উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা ফজলুল হক ও সহকারী শিক্ষা অফিসার ইদ্রিস আলী।

এসময় তারা বিভিন্ন শ্রেণীকক্ষে প্রবেশ করে ছাত্র-ছাত্রীদের উপস্থিতি কম দেখতে পাওয়ায় শিক্ষকমন্ডলীদের প্রতি অসন্তোষ প্রকাশ করেন এবং তিনি বলেন চলতি নভেম্বর মাসে আপনারা কোন বেতন পাবেন না বলে সাফ জানিয়ে দেন। নভেম্বর মাসের বেতন উপজেলার সকল শিক্ষকদের দেওয়া হলেও এখনো দেওয়া হয়নি ওই বিদ্যালয়ের ৫শিক্ষকের বেতন।

এবিষয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নেছার উদ্দিনের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, তৃতীয় প্রান্তিক মূল্যায়ণ পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশের বিষয় নিয়ে বিদ্যালয়ের অফিস কক্ষে বিদ্যালয়ের সকল শিক্ষকগণের সমন্বয়ে ফলাফল প্রকাশের বিষয়ে আলোচনা চলছিলো,পরিক্ষা শেষ হওয়ার সঙ্গত কারনেই ছাত্র-ছাত্রীদের উপস্থিতি এমনিতেই কম হয়।

এমতবস্থায় শিক্ষা কর্মকর্তা এসে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতি কম দেখতে পাওয়ায় আমাদের সকল শিক্ষকদের নভেম্বর মাসের বেতন সাময়িক ভাবে বন্ধ ঘোষনা করে দেয়। বেতন না
পেয়ে আমরা শিক্ষকরা মানবেতর জীবন জাপন করছি। এবিষয়ে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা ফজলুল হকের সাথে যোগাযোগ তিনি জানান, বিদ্যালয়টিতে আমি পরিদর্শনে গিয়ে ছাত্রছাত্রীদের উপস্থিতি একেবারেই কম পেয়েছি যার কারনে দোহার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫জন শিক্ষকদের বেতন সাময়িক ভাবে বন্ধ করা হয়েছে। তাদেরকে মুচলেকা দিতে বলা হয়েছে তারা যদি মুচলেকা জমা দেয় তাহলে বেতন প্রদান করা হবে।

error: Content is protected !!