এবারের জন্মদিন সাদামাটাভাবেই কাটবে – শাবনূর

আওয়াজ অনলাইনঃ পুরো নাম কাজী শারমিন নাহিদ নূপুর।বাংলা চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় নায়িকা শাবনূর। চলচ্চিত্রে আগমনের পরে ‘শাবনূর’ হয়ে উঠেন তিনি। ১৯৯৩ সালের ‘চাঁদনী’ সিনেমায় অভিনয় করে অভিষেক হয় তার। এরপর অভিনয় করেছেন দেড় শতাধিকের বেশি সিনেমায়। তুমুল জনপ্রিয় এ নায়িকার জন্মদিন আজ (১৭ ডিসেম্বর)। ১৯৭৯ সালের আজকের এ দিনে যশোরের নাভারণে জন্মগ্রহণ করেন তিনি।

ক্যারিয়ারে সালমান শাহ, রিয়াজ, শাকিল খান, ফেরদৌস, মান্না ও শাকিব খানের সঙ্গে জুটিবদ্ধ হয়ে একাধিক ব্যবসা সফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন শাবনূর। কাজের স্বীকৃতি হিসেবে শ্রেষ্ঠ চলচ্চিত্র অভিনেত্রী ক্যাটাগরিতে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার, বাচসাস পুরস্কার এবং দশবার মেরিল-প্রথম আলো পুরস্কার পেয়েছেন এ অভিনেত্রী।

২০১২ সালের ২৮ ডিসেম্বর ব্যবসায়ী অনিক মাহমুদকে বিয়ে করেন শাবনূর। তারপর থেকে অস্ট্রেলিয়া বসবাস শুরু এবং নাগরিকত্ব লাভ করেন তিনি। ২০১৩ সালের ২৯ ডিসেম্বর প্রথম পুত্রসন্তান জন্ম দেন এ নায়িকা। অনিক-শাবনূর দম্পতির প্রথম সন্তানের নাম আইজান নিহান। স্বামীর সঙ্গে বনিবনা না হওয়ায় ২০২০ সালের ২৬ জানুয়ারি স্বামীকে তালাক দিয়েছেন শাবনূর। ভেঙে যায় তার আট বছরের সংসার।

নিরাপদ জীবন এবং ছেলের আইজানের উন্নত ভবিষ্যতের জন্যই অস্ট্রেলিয়ার বাসিন্দা হয়েছেন শাবনূর। সেখানে থাকলেও শাবনূরের অন্তর জুড়ে সবসময়ই বাংলাদেশ। কারণ হিসেবে তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশের দর্শকদের কারণেই আমি শাবনূর হতে পেরেছি। নায়িকা হিসেবে পরিচিতি পেয়েছি।’

আরও পড়ুন : বিয়ের শখ মিটে গেছে শাবনূরের!

ঢাকাই সিনেমা ইন্ডাস্ট্রিতে সফলতার সঙ্গে আড়াই দশক পার করেছেন শাবনূর। ক্যারিয়ারের মূল্যায়ন কীভাবে করবেন? জানতে চাইলে এ অভিনেত্রী বলেন, ‘নিজের মূল্যায়ন নিজে আর কী করব। আমার মূল্যায়ন মানুষ করবে। তবে আমি ক্যারিয়ারে কিছু ভালো কাজ করার চেষ্টা করেছি। সেগুলো দর্শকদের পছন্দ হয়েছে বলেই আজকে আমি শাবনূর।’

এবারের জন্মদিন সাদামাটাভাবেই কাটবে শাবনূরের। তবে তার ভক্তদের জন্য এবার বিশেষ উপহার থাকছে বলে জানান এ অভিনেত্রী। কী সে উপহার?

উত্তরে শাবনূর বলেন, ‘জন্মদিন উপলক্ষে আমার ইউটিউব চ্যানেল চালু করব। সেখানে আমার অভিনীত সিনেমাগুলো থাকবে। সিনেমার গানগুলোর নতুন করে সংগীতায়োজন করার পরিকল্পনা রয়েছে। পাশাপাশি বিভিন্ন তথ্য শেয়ার করব। বলতে পারেন, ভক্তদের আরও কাছাকাছি থাকার জন্যই ইউটিউব চ্যানেল চালু করেছি।’

এক সাক্ষাৎকারে শাবনূর জানিয়ে ছিলেন, পাইলট হতে চেয়েছিলেন তিনি। ভাগ্যই তাকে নায়িকা বানিয়েছে। শাবনূর মনে করেন, ভালো চরিত্রে অভিনয়ের ক্ষুধা একজন অভিনেত্রীর সবসময় থাকে।

অভিনয়ের ইচ্ছা এখনও জাগে জনপ্রিয় এ নায়িকার। অনেক চরিত্র আছে যেগুলো শাবনূরের এখনো অভিনয় করা হয়নি।

সুত্র- সময় টিভি