উত্তরাঞ্চলের জনপ্রিয় মানতকরা সত্যপীরের গান নারী বেশে দর্শকদের মন মজাচ্ছেন পুরুষেরা

আবু তারেক বাঁধন,পীরগঞ্জ (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি: সকল দেবতার শ্রেষ্ঠ – সত্যপীর, ম্যানত করলে যে কোন বিপদ বালামশিবত দূর করে এ পীর। গতকাল বুধবার থেকে ৩দিন ব্যাপী মানত করা সত্যপীরের গান শুরু হয়েছে ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ উপজেলার সেনুয়া বাশঁবাড়ি গ্রামে। এ গানে নারী বেশে পুরুষেরা পরণে রঙ্গিন শাড়ী, কোপালে টিপ, খোপায় ফুল, ঠোটে লিপিস্টিক মেখে অভিনয় করে দর্শকদের মন মজাচ্ছেন এবং রঙ্গরশিকতার মাধ্যমে তুলে ধরছে সত্যপীরের জীবনী। গান চালাতে তাদের দলে রয়েছেন ১৫ জন সদস্য।

 

 

গানের দলনেতা (গাইন) গায়েবী ভাবে (স্বপ্নে) সত্যপীরের ভক্ত হয়ে বিভিন্ন এলাকায় গান গাচ্ছেন। গানের আয়োজক সেনুয়া বাশঁবাড়ি গ্রামের ফরোয়াড আলী বলেন, আমার দাদা ৪০ বছর ধরে এ পীরকে মেনে চলছিল আমরা না মানালে আমদের ক্ষতি হবে তাই আমরা সত্যপীরের উদ্দেশ্যে ৩ দিনের গান করছি এতে আমাদের ব্যাবসা ও সংসারের শান্তি সহ জীবনে চলার পথে সফলতা আসবে । এ প্রসঙ্গে দলনেতা (গাইন) ওয়াহেদ আলী বলেন, সত্যপীরের গান সকল ধর্মের মানুষ মানত করে থাকে, প্রথমত পীরের উদ্যেশে মিলাদ মহফিল ও ২টি রোজা পালন করা হয়।

 

মনের বাসনা পূরন হলে ৩দিন ৫দিন অথবা ৭দিনের জন্য মানত অনূযায়ী গান পরিচালিত হয় যা সম্পূর্ণ কিতাব থেকে পরিচালিত হয়। তিনি আরো বলেন গান হলো মানুষের মনের খোরাক একটি বিনোদন মাত্র। সত্যপীরের মাজারটি বগুড়া মহাস্থানগড়ের পাহাড়পুর নামক স্থানে অবস্থিত। এ মাজারে সব সময় মানুষ দুধ কলা ও মিলাদ মহফিল করে মনের বাসনা পূরণ করচ্ছেন। সত্যপীরের গান প্রসঙ্গে ঢাকা আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ের আল-কোরআন এন্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের অনার্স ৩য় বর্ষের ছাত্র সালাউদ্দীন কবির সবুজ বলেন, এ গানটি কোরআন হাদিসের আলোকে বৈধ নয় এটি কাল্পনিক ও কুসংস্কার মাত্র।