হোম » প্রধান সংবাদ » প্রযুক্তির সাথে তাল মিলিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে খাজা ইউনুস আলী বিশ্ববিদ্যালয়

প্রযুক্তির সাথে তাল মিলিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে খাজা ইউনুস আলী বিশ্ববিদ্যালয়

আবু আলী: একবিংশ শতকে প্রযুক্তিবিদ্যা ও কলা কৌশলের যে অভূতপূব উন্নতির সাথে তাল মিলিয়ে এগিয়ে চলছে খাজা ইউনুস আলী বিশ্ববিদ্যালয়। মহামারী করোনার মধ্যেও সৃজনশীল কর্মসূচি পালন করছে খাজা ইউনুস আলী বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটর ও প্রকৌশল বিভাগের শিক্ষক শিক্ষার্থীরা।

শনিবার রাতে আন্তঃ বিশ্ববিদ্যালয় অনলাইন কর্মসূচি প্রতিযোগিতা ২০২০ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপাচার্য প্রফেসর ড. হোসেন রেজা এ কথা বলেন। অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রাস্টি বোর্ডের সদস্য মোহাম্মদ ইউনুস খান, রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) মো. মিজানুর রহমান, কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের বিভাগ প্রধান প্রফেসর ড. মীর মোহাম্মদ আজাদ, ইংরেজি বিভাগের বিভাগ প্রধান ও ডাইরেক্টর আইকিউএসি প্রফেসর আবুয়াল ইসলাম, ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের বিভাগ প্রধান প্রফেসর ড. নুরুল আলম, ফার্মেসি বিভাগের বিভাগ প্রধান ড. ফজলে রাব্বী শাকিল আহমেদ, আইন বিভাগের বিভাগ প্রধান মো. হুমায়ুন কবীর, বিসিবিটি বিভাগের বিভাগ প্রধান ড. রেজাউল করিম, লাইব্রেরী এন্ড ইনফরমেশন সাইন্স বিভাগের বিভাগ প্রধান রোজিফা আক্তার, প্রফেসর ড. মেজবাউল হক, সহ বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক মন্ডলী ও শিক্ষার্থীগণ।

অনুষ্ঠানের আহ্বায়ক কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের সিনিয়র লেকচারার মোঃ তারেকুল ইসলাম প্রথমেই বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রয়াত প্রতিষ্ঠাতা ডঃ মীর মোহাম্মদ আমজাদ হোসেন এর স্মরণে এবং বিশ্ববিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সবার সুস্থতা ও সফলতা কামনা করে অনুষ্ঠানের শুরু করেন। তিনি আরো বলেন দক্ষ ও সৃজনশীল জনশক্তি তৈরিতে শিক্ষার্থীদের প্রোগ্রামিং এ উৎসাহিত করণের লক্ষ্যে এ ধরনের আয়োজন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. হোসেন রেজা বলেন, খাজা ইউনুস আলী বিশ্ববিদ্যালয় সব সময় সৃজনশীল কর্মসূচি নিয়ে থাকে। এখন কোভিড-১৯ এর মতো মহামারীর মধ্যে এ ধরণের উদ্যোগ শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের আরও উৎসাহিত করবে। তিনি সকল বিভাগকেই এ ধরণের উদ্যোগ নেওয়ার পরামর্শ দেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) মো. মিজানুর রহমান বলেন, করোনা পরিস্থিতির বৈশ্বিক সংকটে শিক্ষার্থীদের শিক্ষাজীবন সুরক্ষিত, প্রযুক্তিনিভর ও নিয়মিত রাখতে এইরকম উদ্দীপনাপূণ প্রোগ্রামিং কনটেস্ট আদর্শ উধ্যোগ হিসেবে অন্য বিভাগের শিক্ষার্থীদেরও উজ্জীবিত করবার প্রয়াস রাখবে । রাত নয়টা থেকে শুরু হওয়া পাঁচ ঘন্টা ব্যাপী এই প্রোগ্রামিং প্রতিযোগিতায় অংশ নেয় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় অর্ধশতাধিক শিক্ষার্থী। এরমধ্যে দশটি সমস্যার মধ্যে সাতটি সমস্যা সমাধান করে প্রথম স্থান অর্জন করেন কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী মাহবুবুল হাসান।

৬ টি সমস্যার সমাধান করে দ্বিতীয় স্থানে থাকেন একই বর্ষের শিক্ষার্থী সোহাগ আহমেদ, ও তৃতীয় স্থান অর্জন করেন ৪ টি সমস্যা সমাধান করে চতুর্থ বর্ষের রাহাত খান। এছাড়াও হাসনাইন কবির, হাসিবুর রহমান, মঞ্জুরুল আলম সবাই তিনটি করে সমস্যার সমাধান করেন। দুটি করে সমস্যার সমাধান করেন সাদিক মিশুক ও শফিকুল ইসলাম। একটি সমস্যার সমাধান করেন মেরাজ আহমেদ।

শেয়ার করুন আপনার পছন্দের সোশ্যাল মিডিয়ায়
error: Content is protected !!