হোম » খেলা » রুদ্ধশ্বাস ফাইনালে কুমিল্লার ঘরেই বিপিএলের তৃতীয় শিরোপা

রুদ্ধশ্বাস ফাইনালে কুমিল্লার ঘরেই বিপিএলের তৃতীয় শিরোপা

রুদ্ধশ্বাস ফাইনাল হয়তো একেই বলে। অন্যভাবে বললে বলা যায়, ফাইনাল হলো ফাইনালের মতোই। শেষ ওভারে এসেই বিপিএলের তৃতীয় শিরোপা ঘরে তুললো কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। হাড্ডাহাড্ডি লড়াই শেষে সাকিবের ফরচুন বরিশালকে ১ রানে হারিয়ে বিপিএল ট্রফি উচিয়ে ধরলো ইমরুল কায়েস।

ম্যাচের শুরুতে টসে জিতে ব্যাটিং নিয়েছিলেন কুমিল্লার অধিনায়ক ইমরুল কায়েস। ব্যাটিংয়ে নেমে আজও তান্ডব চালিয়েছেন সুনীল নারাইন। ক্যারিবিয়ান এই অলরাউন্ডারের ২৩ বলে ৫৭ রানের ঝড় আর শেষের দিকে ইংলিশ অলরাউন্ডার মঈন আলীর দায়িত্বশীল ৩২ বলে ৩৮ রানে ভর করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ১৫১ রানের সংগ্রহ পায় কুমিল্লা। ইনিংস যেভাবে শুড়ু করেছিলো ঠিক সেভাবে এগোতে পারেনি মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায়। নাহলে স্কোরবোর্ডে যোগ হতে পারতো আরও কিছু রান।

১৫২ রান করতে পারলেই বিপিএলে নিজেদের প্রথম শিরোপা। এই লক্ষ্যে ব্যাটিং করতে নেমে শুরুতেই ধাক্কা বরিশাল শিবিরে। দলীয় ৫ রানের মাথাতেই তারা হারিয়ে বসে টুর্নামেন্ট জুড়ে অসাধারণ খেলতে থাকা ওপেনার মুনিম শাহরিয়ারকে। এরপর অবশ্য দলকে আর পথ হারাতে দেননি ক্যারিবিয়ান ব্যাটিং দানব ক্রিস গেইল আর সৈকত আলী। দুজন মিলে করেন ৭৫ রানের জুটি। দলীয় ৭৯ রানে এই জুটি ভাঙেন তানভীর ইসলাম। জুটিতে গেইল ধীরস্থির থাকলেও ঝড় তোলেন সৈকত। তানভীরের বলে আউট হওয়ার আগে ১১ চার আর ১ ছয়ে নিজের নামের পাশে যোগ করেন ৩৪ বলে ৫৮ রান।

সৈকতের পর ক্রিজে এসে সুবিধা করতে পারেননি সোহান-সাকিব কেউই। টুর্নামেন্ট জুড়ে দারুণ ছন্দে থাকা সাকিব ফাইনালে করেন মাত্র ৭ রান। নারাইনের বলে এলবিডব্লিউ হয়ে ৩১ বলে ৩৩ রান করে প্যাভিলিয়নে ফেরেন গেইলও। আরেক ক্যারিবিয়ান ডোয়াইন ব্রাভোও ফিরে যান ২ বলে ১ রান করেই। ১৭.১ ওভারে ১৩৪ রানে ৬ উইকেট হারায় বরিশাল।

জয়ের জন্য তখনও দরকার ২৩ বলে ১৮ রান, হাতে ৪ উইকেট। ৭ বল পরে আউট হয়ে ফেরেন নাজমুল হোসেন শান্তও। দ্রুত উইকেট হারিয়ে চাপে পড়া বরিশালের শেষ ওভারে এসে জয়ের জন্য প্রয়োজন ছিলো ১০ রানের।

কুমিল্লার অধিনায়ক ইমরুল বল তুলে দেন শহীদুল ইসলামের হাতে। বরিশালের ব্যাটিংয়ে থাকা তৌহিদ হৃদয় আর মুজিবর রহমান মিলে শহীদুলের ওভার থেকে নিতে পারলেন ৯ রান। শেষ বলে প্রয়োজন ছিলো ৩ রানের। আউটই হয়ে গেলেন মুজিব। বিপিএল শিরোপা অড়াই রয়ে গেলো বরিশালের কাছে।

১ রানে জিতিয়ে কুমিল্লাকে তৃতীয় শিরোপার স্বাদ এনে দিলেন শহীদুল। ইমরুলও করে ফেললেন রেকর্ড, মাশরাফির পর দ্বিতীয় অধিনায়ক হিসেবে জিতলেন একের অধিক বিপিএল ট্রফি।

শেয়ার করুন আপনার পছন্দের সোশ্যাল মিডিয়ায়
error: Content is protected !!