হোম » প্রধান সংবাদ » আপনার সামান্য আর্থিক সহযোগিতায় স্বাভাবিক জীবন ফিরে পেতে পারে-দিনমজুর রুহুল আমিন

আপনার সামান্য আর্থিক সহযোগিতায় স্বাভাবিক জীবন ফিরে পেতে পারে-দিনমজুর রুহুল আমিন

জে.ইতি হরিপুর (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধিঃ আপনার সামান্য আর্থিক সহযোগিতায় কেলয়েড নামক মরণব্যাধি থেকে সূস্থ্য হয়ে স্বাভাবিক জীবন ফিরে পেতে পারে রুহুল আমিন নামে এক দিনমজুর যুবক। অসূস্থ্য দিনমজুর রুহুল আমিন ঠাকুরগাঁও জেলার হরিপুর উপজেলার ৪নং ডাঙ্গীপাড়া ইউনিয়নের রণহাট্টা গ্রামের আব্দুল বারিকের ছেলে।

দৈনিক মজুরী হিসেবে রুহুল আমিন ঢাকার একটি বিস্কুট ফ্যাক্টরীতে কাজ করেন। কেলয়েড নামক মরণব্যাধির কারণে তাঁর দেহে পর্যাপ্ত ক্যালসিয়াম তৈরি না হওয়ার ফলে তাঁর মেরুদন্ডের জয়েন্টের স্থানে ক্যালসিয়াম শূন্যতা সৃষ্টি হয়েছে। ক্যালসিয়াম শূন্যতা সৃষ্টি হওয়ার কারণে তাঁর দেহের মেরুদন্ডের বাম ও ডান দিকের হাড়গুলো অন্য হাড়ের সাথে জয়েন্ট হতে চলেছে। দুই দিকের হাড় এক সাথে জয়েন্ট হয়ে যাওয়ার কারণে সে স্বাভাবিকভাবে চলাফেরা করতে পারেনা। দিনদিন সে দুই পায়ের শক্তি হারিয়ে ফেলছে। ধীরে ধীরে তাঁর শারীরিক নানা সমস্যা দেখা দিয়েছে।

গত দুই বছর আগে রুহুল আমিন ঢাকার এ্যাপেলো হসাপাতালে ডাঃ সুমন কুমার রায়ের কাছে মেরুদন্ড ও পায়ের চিকিৎসা করেন। ডাঃ সুমন কুমার রায়ের কাছে দীর্ঘদিন চিকিৎসা নেওয়ার পরও সূস্থ্য হয়ে না উঠার ফলে ঢাকার আনোয়ারা খান মডার্ণ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগের ডাঃ মোঃ মতিউর রহমান এর নিকট চিকিৎসা নেয়। তাতেও সে সুস্থ্য না হওয়ার কারণে ডাঃ মোঃ মতিউর রহমান পরামর্শ দেয় ভারতে গিয়ে চিৎিসা নেওয়ার। তাঁরপর রুহুল আমিন নিজের ৪ শতকের বসতবাড়ি বিক্রি কওে এবং আতœীয়-স্বজনের নিকট টাকা দেনা করে ভারতের কলকাতা কোথারি মেডিকেল হাসপাতালে অর্থপেডিক বিশেষজ্ঞ ডাঃ দিপক রায় চৌধুরীর নিকট চিকিৎসা গ্রহণ করেন।

৩মাস পরপর সে ৩বার ভারতে চিকিৎসা করতে যায়। এতেও রুহুল আমিন সূস্থ্য হয়ে না উঠার ফলে পূনরায় কোথারি মেডিকেল হাসপাতালে অর্থপেডিক (সার্জন) ডাঃ আরভিন্দ কুমার কালিয়ানির নিটক চিকিৎসা গ্রহন করতে গেলে তিনি বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর জরুরীভাবে মেরুদন্ডের অপারেশন করার পরামর্শ দেন। তাঁর অপারেশন করতে দেড় লক্ষাধিক টাকা খরচ হবে বলে ডাক্তার জানিয়েছে। জরুরীভাবে অপারারেশন

শেয়ার করুন আপনার পছন্দের সোশ্যাল মিডিয়ায়
error: Content is protected !!