সব্জী এখন ‘পানির দর’ বিক্রি হচ্ছে

নিজস্ব প্রতিনিধি :: বাজারে এখন শীতকালীন সবজির ব্যাপক সরবরাহ। তাই হাতেগুনা দু’একটি বাদে প্রায় সব ধরনের সব্জী এখন ‘পানির দরে’ বিক্রি হচ্ছে। যা এক-দেড় মাস আগে কল্পনাও করা যায়নি। শনিবার রাজধানীর বিভিন্ন খুচরা কাঁচাবাজারে ঘুরে দেখা যায়, বেশিরভাগ সব্জী ২০ থেকে ৩০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। অথচ মাত্র কিছুদিন আগেও ৭০ থেকে ৮০ টাকা কেজির নীচে কোন সব্জী পাওয়া যায়নি।

ব্যবসায়ীরা বলেছেন, বাজারে এখন শীতকালীন সব্জীর সরবরাহ বাড়ছে। ফলে সব্জীর দাম কমছে। তারা বলেন, সব্জীর দাম সামনে আরো কমবে।
উল্লেখ্য, চলতি বছর দেশে পাহাড়ি ঢল ও অতিবৃষ্টির কারণে চার দফা বন্যায় সবজিক্ষেত নষ্ট হওয়ায় চড়া দামে বিক্রি হয় সব ধরনের সবজি। এতে বিপাকে পড়ে স্বল্প আয়ের মানুষ।

রাজধানীর কাওরানবাজার, মহাখালী কাঁচা বাজার, তালতলী বাজার, শান্তিনগর ও মিরপুরের এলাকার বিভিন্ন বাজারে খোঁজ নিয়ে দেখা যায়, বিভিন্ন ধরনের সব্জীর মধ্যে বাজারভেদে শিম ২০ থেকে ২৫ টাকা, মূলা ১৫ থেকে ২০ টাকা, পটল, বেগুন ২0 থেকে ৩০ টাকা, ঢেঁড়স ২৫ থেকে ৩৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। অথচ মাস দুয়েক আগেও প্রতি কেজি শিমের দাম ছিল ১২০ টাকা। মূলা, পটল, বেগুনের দামও ছিল বেশ চড়া।

মৌসুমের শুরুতে যে ফুলকপি, বাঁধাকপির দাম ছিল ৪০ থেকে ৬০ টাকা ছিলো, তা এখন ১০ থেকে ২০ টাকার মধ্যে পাওয়া যাচ্ছে। দাম কমার তালিকায় রয়েছে লাউ, কুমড়া ও করল্লাও। ৬০ থেকে ৭০ টাকার লাউ, কুমড়া এখন বিক্রি হচ্ছে ২০ থেকে সর্বোচ্চ ৩০ টাকার মধ্যে। আর করল্লার কেজি বিক্রি হচ্ছে ৪০ টাকার মধ্যে। যা কিছুদিন আগেও ৬০ থেকে ৭০ টাকা ছিল।

### SSS