JavaScript must be enabled in order for you to see "WP Copy Data Protect" effect. However, it seems JavaScript is either disabled or not supported by your browser. To see full result of "WP Copy Data Protector", enable JavaScript by changing your browser options, then try again.
সংবাদ শিরোনাম:
Home / অপরাধ-দুর্নীতি / নারায়ণগঞ্জে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ৩ ডাকাত গ্রেফতার
নারায়ণগঞ্জে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ৩ ডাকাত গ্রেফতার

নারায়ণগঞ্জে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ৩ ডাকাত গ্রেফতার

মোঃ কবির হোসেন, নারায়ণঞ্জ প্রতিনিধি:

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ৩ ডাকাতকে আটক করেছে র‍্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ান। আটককৃতদের কাছ থেকে ১টি এলজি, ২ রাউন্ড গুলি, ১টি চাপাতি ও ১ টি ধারালো দা উদ্ধার করা হয়েছে।

রবিবার (১৩ মে) দুপুরে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানান র‍্যাব ১১ এর সিনিয়র এএসপি মোঃ জসিমউদ্দিন চৌধুরী। এর আগে শনিবার (১২ মে) দিবাগত রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সোনারগাঁ থানাধীন মেঘনা ব্রীজ টোল প্লাজা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হলেন, সোনারগাঁ মুগড়াপাড়া এলাকায় সজিব (১৯), নীলকান্দা এলাকার সাকিব হোসেন ((১৯) ও রুপগঞ্জের চনপাড়া এলাকার শুক্কুর আলী (১৯)।

আটককৃত আসামী সজীবের নামে চুরি ও ডাকাতির বেশ কয়েকটি মামলা চলমান রয়েছে। এছাড়াও শুক্কুর গত মার্চ মাসে রুপগঞ্জের চাঞ্চল্যকর মনির হত্যাকান্ডে অভিযুক্ত। গত ১২ মে ২০১৮ তারিখ দিবাগত রাতে গ্রেফতারকৃত দুষ্কৃতিকারী ডাকাতের দল মহাসড়কের বিভিন্ন যাত্রীবাহী যানবাহনে ডাকাতি করার উদ্দেশ্যে মুগড়াপাড়া আফিয়া ফিলিং স্টেশন সংলগ্ন রাস্তার মুখে অস্ত্রশস্ত্রসহ সমবেত হয়েছিল।

র‍্যাব জানায়, বেশ কিছুদিন যাবৎ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লার দাউদকান্দি, মুন্সিগঞ্জের মেঘনা ও নারায়ণগঞ্জের কাঁচপুরে একযোগে ৩ টি সেতুর নির্মাণ কাজ চলমান থাকায় মহাসড়কের এই সকল এলাকায় প্রায়শই তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। এই যানজটের সুযোগ নিয়ে সংঘবদ্ধ ডাকাত দল বিভিন্ন সময় ডাকাতি করে। রাতের অন্ধকারে যানজটের কবলে পড়া প্রাইভেট কার, মাইক্রোবাস, পিকআপ, কাভ্যার্ড ভ্যান ও বিদেশ ফেরত প্রবাসীদের বহনকারী গাড়িগুলো ডাকাতদের প্রধান টার্গেট থাকে। সম্প্রতি মহাসড়কের এই এলাকাগুলোতে বেশ কয়েকটি চাঞ্চল্যকর ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। দুষ্কৃতিকারী ডাকাতরা ডাকাতি করতে গিয়ে আক্রান্ত ব্যক্তিদের মারধর, ছুরিকাঘাত ও গাড়ি ভাংচুর করে থাকে।

 

র‍্যাব আরো জানায়, এসব কারণে র‍্যাব নজরদারি বৃদ্ধি করে এসকল স্থানে। তারই মধ্যে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে এদেরকে আটক করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা পেশাদার ডাকাত দলের সক্রিয় সদস্য এবং সবাই মাদকাসক্ত বলে জানিয়েছে। তারা ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে বিভিন্ন জায়গায় দীর্ঘদিন ধরে ডাকাতি করে আসছিল। বিশেষ করে মহাসড়কে সৃষ্ট যানজটের সুযোগ নিয়ে গভীর রাতে যানবাহনে হানা দিয়ে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে ও মারধর করে নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার ও মোবাইল ফোন লুট করে নিয়ে যায় তারা।

 

তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলে জানায় র‍্যাব।

Comments

comments

About গণমানুষের আওয়াজ.কম

Scroll To Top
error: Content is protected !!