Home » সংবাদ শিরোনাম » শাজাহানপুরে অসহায়দের সম্পত্তি প্রভাবশালীদের দখলে
শাজাহানপুরে অসহায়দের সম্পত্তি  প্রভাবশালীদের দখলে

শাজাহানপুরে অসহায়দের সম্পত্তি প্রভাবশালীদের দখলে

এম.এ. রাশেদ (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ “জোর যার মল্লুক তার”। কারন- না আছে টাকার জোর, না আছে গায়ের জোর। আর এ দুটো না থাকলে জীবন যেন অসহায়। এমন দাম্ভিকতা ও সাহসীকতা নিয়ে বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার জামালপুর গ্রামে এক অসহায় পরিবারের সম্পত্তি দখল করেছে প্রভাবশালীরা। ঘটনার বিবরণে জানাগেছে, অভাব অনটনের সংসারে কেউ যাতে জমি বিক্রি করে সর্বশান্ত হয়ে না পরে সেই লক্ষ্যে ওই গ্রামের মৃত মোহাম্মদ আলী জীবিত থাকাকালীন ২০০২ সালে জামালপুর মৌজায় ২০২২ এবং ২০২৩ নং দাগে মোট ২০ শতক জমির মধ্যে ১৫ শতক জমি তার স্ত্রী বেলিচা খাতুন (৫৭) ও ৫ সন্তান বেলাল (৩৯), মতিন (৪০), নজরুল (৩২), ফজলু (২৭)ও বাবু (২২) র নামে গোপনে দলিল করে দিয়ে রাখেন এবং এসব কারনে বিষয়টি তিনি কখনও প্রকাশ করেননি।

বছর খানেক আগে মোহাম্মদ আলীর মৃত্যু হলে ঐসব দাগের অপর শরিক জমি বিষয়ে ভুমি রেজিষ্ট্রি অফিসে গেলে বিষয়টি জানতে পারায় গ্রামে এসে তা প্রাকাশ করে। পরে মোহাম্মদ আলীর স্ত্রী সন্তানরা ওই অফিসে গিয়ে বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার পর জমিটির দলিল উত্তোলন করেন। দলিল উত্তোলনের পর দখল নিতে তারা জমিতে গেলে এলাকার প্রভাবশালী মৃত আনছার আলীর ৩ ছেলে নাছির উদ্দিন (৩৬), শামীম আহমেদ (৩৩)ও ফরহাদ হোসেন (৩০) ওই জমিটি তাদের বলে জানায়। নিরুপায় হয়ে বিচারের বাণী মাথায় নিয়ে মৃত মোহাম্মদ আলীর স্ত্রী ও সন্তানেরা স্থানীয় আড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদে গিয়ে নালিশ করেন।

 

কিন্তু বিধি বাম। ইউনিয়ন পরিষদে এ বিষয়ে শালিসের কথা জানতে পেরে তড়িঘড়ি করে আরসিসি পিলার ও ষ্টীলের তারকাঁটা দিয়ে জমিটি ঘেড়াও করে আনছার আলীর ৩ ছেলে দখল করে নেয়। সংবাদ পেয়ে চেয়ারম্যান ইউনিয়ন পরিষদের গ্রাম পুলিশ দিয়ে বাধা প্রদান করার পরও তা তারা উপেক্ষা করে। এভাবে জোর করে জমি দখল করার কারন জানতে চাইলে আনছার আলীর ছেলে নাছির উদ্দিন জানান, এই জমিটি তারা ২০০৩ সালে মোহাম্মদ আলীর নিকট থেকে ক্রয় করেছেন। সুতরাং বিচারের কিছু নাই।

আর মোহাম্মদ আলীর ছেলে বেলাল ও মতিন জানান, দখলকারীরা গ্রামের বখাটে ছেলেদের দিয়ে তাদেরকে নানা ধরনর হুমকি ও ভয়ভীতি দেখাচ্ছে। কিন্তু আমাদের না আছে টাকার জোর না আছে গায়ের জোর। তাই প্রভাবশালীদের কাছে নিরুপায় হয়ে পরেছি। এদিকে বিষয়টি নিয়ে আড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের বলেন, অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

BIGTheme.net • Free Website Templates - Downlaod Full Themes
Scroll Up
error: Content is protected !!