Home » রাজনীতি »  ঢালাওভাবে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ জনগণ পছন্দ করে না-বি. চৌধুরী
 ঢালাওভাবে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ জনগণ পছন্দ করে না-বি. চৌধুরী

 ঢালাওভাবে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ জনগণ পছন্দ করে না-বি. চৌধুরী

আওয়াজ অনলাইনঃ বিকল্পধারার প্রেসিডেন্ট এবং যুক্তফ্রন্টের চেয়ারম্যান সাবেক রাষ্ট্রপতি অধ্যাপক এ.কিউ.এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী ২০১৯-২০২০ অর্থ্ বছরের বাজেটকে মহাবাজেট উল্লেখ করে অর্থ্মন্ত্রীকে ধন্যবাদ   জানিয়ে বলেছেন, তবে এই বাজেটে ঢালাওভাবে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ দেওয়া জনগণ  পছন্দ করে নাই।

তিনি দেশের জ্যেষ্ঠ নাগরিকদের জন্য বিভাগীয় সদরে ৫ হাজার বেডের হাসপাতাল স্থাপন এবং তাদের বিভিন্ন রোগের জন্য ওষুধের দাম শতকরা ৫০ ভাগ কমানোর দাবি জানিয়েছেন।

বি. চৌধুরী ২৫ জুন মঙ্গলবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের আব্দুস সালাম মিলনায়তনে যুক্তফ্রন্টের উদ্যোগে এবং বিকল্পধারার আয়োজনে ‘বাজেট ২০১৯-২০২০ বাস্তবায়ন ও চ্যালেঞ্ ‘ শীর্ষক্ আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ সব কথা বলেন।

বি. চৌধুরী উপজেলায় ট্যাক্স সেন্টার করার প্রস্তাবের জন্য সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, এটা সরকারের একটি ভালো উদ্যোগ। তবে এটা কর বৃদ্ধি করে নয় বরং করের নেটওয়ার্ক্ বাড়াতে হবে। উপজেলার করদাতাদের উৎসাহিত করার জন্য তাদের প্রণোদনা দিতে হবে, তাদের সরকারি বিভিন্ন অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে আমন্ত্রণ জানাতে হবে।

তিনি মুক্তিযোদ্ধা ভাতা শতকরা ২০ ভাগ এবং এবং বয়স্ক ভাতা বাড়ানোর জন্য এবং ক্যান্সারের ওষুধের দাম কমানোর প্রস্তাবের জন্য সরকারকে সাধুবাদ জানিয়ে বলেন, পাঁচটি বড় রোগ ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগ, কিডনী ও লিভারের বিভিন্ন রোগে ব্যবহৃত ওষুধের দাম শতকরা ৫০ ভাগ কমানো এবং বিভাগীয় শহরে জ্যেষ্ঠ নাগরিকদের জন্য ৫ হাজার বেডের হাসপাতাল নির্মাণের দাবি জানান।

বি. চৌধুরী ব্যাংকিং খাত এবং শেয়ার মার্কেটের জন্য আলাদা আলাদা কমিশন গঠনের জন্য দ্রুত কার্যকর পদক্ষেপ নেওয়ার দাবি জানান।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের এমপিও ভূক্তির আশ্বাসের জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে বি. চৌধুরী বলেন, তবে বাজেটে শিক্ষার উন্নয়নে দৃঢ় পদক্ষেপ নেই।তিনি বলেন, সারা পৃথিবীর সঙ্গে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে হলে আমাদের বিজ্ঞানমনস্ক শিক্ষাকে অগ্রাধিকার দিতে হবে।বি. চৌধুরী ভারতীয় বাজেটে সে দেশের জ্যেষ্ঠ নাগরিকদের আয়করের ক্ষেত্রে বিভিন্ন সুবিধা দেওয়ার উল্লেখ করে বলেন, আমাদের দেশের ৬০ বছর পর্যন্ত উৎপাদনশীল জনগোষ্ঠীর জন্য আয়কর ৫ লাখ এবং ৬০ থেকে ৮০ এবং ৮০-এর উর্দ্ধে জ্যেষ্ঠ নাগরিকদের ৮ লাখ টাকা পর্যন্ত আয়কর মওকুফ করা উচিত। কারণ তারা যে আয় তারা করেন তা থেকে ক্যান্সার, ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, হৃদরোগ, কিডনী ও অর্ধাঙ্গ রোগের ওষুধ কিনতে তাদের আয়ের শতকরা ৮০ ভাগ টাকা খরচ হয়ে যায়।

বি. চৌধুরী কৃষকের সমস্য সমাধানে আরো আন্তরিক হওয়ার আহ্বান জানিয়ে বলেন, কৃষিজাত দ্রব্যমূল্য স্থিতিশীল রাখতে হবে।

যুক্তফ্রন্টের প্রধান সমন্বয়ক ও প্রেসিডিয়াম সদস্য গোলাম সারোয়ার মিলনের সভাপতিত্বে এবং বাগসদের সভাপতি সরদার শামস আল মামুনের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন, বিকল্পধারার মহাসচিব মেজর (অব.) আবদুল মান্নান এমপি, বিকল্পধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য শমশের মবিন চৌধুরী বীরবিক্রম, বিকল্পধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য মাহী বি. চৌধুরী এমপি, প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক এমপি মজহারুল হক শাহ চৌধুরী, বিকল্পধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য ডা. রফিকুল ইসলাম চৌধুরী, বিএলডিপির চেয়ারম্যান নাজিমউদ্দিন আল আজাদ, জন দলের চেয়ারম্যান মাহবুবুর রহমান জয় চৌধুরী, লেবার পার্টির চেয়ারম্যান হামদুল্লা আল মেহেদী, বাংলাদেশ শরীয়া আন্দোলনের আমীর মাওলানা মাসুম বিল্লাহ,  বাংলাদেশ ন্যাপ মহাসচিব গোলাম মোস্তফা ভূইয়া, এনডিপি মহাসচিব মঞ্জুর হোসেন ঈসা. বিকল্পধারার সহ-সভাপতি এনায়েত কবীর, বাংলাদেশ জনদলের মহাসচিব সেলিম আহাম্মেদ, লেবার পার্টির  মহাসচিব আবদুল্লাহ আল মামুন, বিকল্পধারার সাংগঠনিক সম্পাদক ব্যারিস্টার ওমর ফারুক, বাংলাদেশ জনতা লীগের চেয়ারম্যান ওসমান গণি বেলাল, জনতা লীগের কো-চেয়ারম্যান শাহ মোহাম্মদ আসলাম হোনাইন, বিকল্পধারার প্রচার সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার মেসবাহ উদ্দিন জুন্নু, বিকল্পধারার নেতা নবাব বাহাদুর প্রমুখ।

লাইক ও শেয়ার করুন:
BIGTheme.net • Free Website Templates - Downlaod Full Themes
Scroll Up
Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial
error: Content is protected !!