বদলগাছী (নওগাঁ) প্রতিনিধি: নওগাঁর বদলগাছীতে শারীরিক সম্পর্কের ভিডিও চিত্র ইন্টারনেটে ছেড়ে দেওয়ার হুমকির জের ধরে বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়–য়া এক ছাত্রির অভিযোগের ভিত্তিতে র‌্যাব সদস্যরা প্রেমিক আতিকুর রহমান
(২৪) কে আটক করে বদলগাছী থানায় সোপর্দ করে। মামলা সুত্রে জানা যায়, নওগাঁ সদর উকিলপাড়া মহল্লার জৈনক ব্যাক্তির বিশ্ববিদ্যালয় পড়–য়া মেয়ের সাথে বদলগাছী উপজেলার চকসুবদেব গ্রামের আব্দুল গফুর এর ছেলে আতিকুর রহমানের সাথে ফেসবুকের মাধ্যমে পরিচয় হয়।

এর পর তাদের দুজনের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। এর এক পর্যায় তাদের দুজনের মধ্যে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে উঠে এবং প্রেমিক আতিকুর রহমান তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনে শারীরিক সম্পর্কের ভিডিও ধারণ করে রাখে। ভিডিও ধারণ করে রেখে প্রেমিক আতিকুর রহমান তার প্রেমিকাকে পুনুরায় শারীরিক সম্পর্ক করার প্রস্তাব দেয়। এতে ওই প্রেমিকা রাজি না হলে পূর্বে ধারনকৃত ভিডিও ইন্টারনেটের মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি প্রদান করলে প্রেমিকা চরম বিপাকে পড়ে যায়।

অবশেষে প্রেমিকা গত ৩০ মে জয়পুরহাট র‌্যাব ক্যাম্পে গিয়ে প্রেমিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন। অভিযোগের ভিত্তিতে ওই দিন রাতে জয়পুরহাট র‌্যাব কাম্পের নায়েক সুবেদার আনোয়ারুল ইসলাম এর নেতৃত্বে সঙ্গীয় ফোর্স সহ র‌্যাবের টহল দল বদলগাছী উপজেলার বিলাসবাড়ি ইউপির শ্রীরামপুর বাজারে অভিযান চালিয়ে রাত ৯ টার প্রেমিক আতিকুর রহমানকে আটক করে। আটককৃত আতিকুর রহমানের  নিকট থাকা স্কুল ব্যাগ তল্লাশি করে একটি ল্যাপটপ পাওয়া যায়। ল্যাপটপটি যাচাই-বাচাই করে প্রেমিক যুগলের অন্তরঙ্গ মহুর্তের ভিডিও পাওয়া যায়।

এসময় র‌্যাব সদস্যরা প্রেমিক অতিকুর রহমানের নিকট থাকা ল্যাপটপ ও দুটি মোবাইল ফোন এবং নগদ দুই হাজার ৩ শত ২০ টাকা জব্দ করে। এর পর অতিকুরকে আটক করে থানায় নিয়ে আসার পথে হঠাৎ করে অসুস্থ্য হয়ে পড়লে বদলগাছী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বদলগাছী থানা পুলিশের নিকট হস্তান্তর করে। ৩১ মে প্রেমিকা বদলগাছী থানায় পর্নোগ্রাফি আইনে একটি মামলা দায়ের করলে থানা পুলিশ প্রেমিক আতিকুরকে জেল হাজতে প্রেরণ করে। এবিষয়ে বদলগাছী থানার অফিসার ইনচার্জ চৌধুরী জোবায়ের আহম্মদ এর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন প্রেমিক আতিকুরকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। আতিকুর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিন মার্স্ট্রাস এর ছাত্র।